বিনোদন রিপোর্ট : হোলি আর্টিজন জঙ্গি হামলার পর থেকে দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান নিজের জন্ম দিনে পালন থেকে বিরত থাকেন। গতকাল ১ জুলাই ছিলো তার জন্মদিন। এদিনে ভক্ত-অনুরাগীদের ভালোবাসায় সিক্ত হয়েছেন তিনি। দুই বাংলা থেকে অনেক তারকারাও শামিল ছিলেন জয়াকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানানোর মিছিলে।
এদিকে আজ ২ জুলাই দুপুরে জয়া জানালেন নিজের জন্মদিন পালন না করার কথা। তার কারণও জানিয়েছেন তিনি। নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এক স্ট্যাটাসে তিনি লিখেছেন, ২০১৬ সালের ১ জুলাইয়ে হোলি আর্টিজানে জঙ্গি হামলার পর থেকে আর নিজের জন্মদিন উদযাপন করার উৎসাহ পান না তিনি।
জয়া স্ট্যাটাসে লিখেছেন, ‘কাল ছিল ১ জুলাই। হোলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলার দিন। মর্মান্তিক সেই ঘটনা আমার মনে স্থায়ী একটি ক্ষত রেখে গেছে। সেই ঘটনার ব্যথা এই দিনটিতে আমার মনে এখনো অসম্ভব তীব্র হয়ে ওঠে। মনে ভেসে উঠতে থাকে নিহত একরাশ মুখচ্ছবি। আমি কিছুতেই ভুলতে পারি না।
১ জুলাই আমার জন্মদিনও। জন্মদিন উদযাপনের দিন। কিন্তু ২০১৬ সালের ১ জুলাইয়ের সেই ঘটনার পর থেকে আমার মনে কোনো উদযাপন আসে না। কেক কাটার মন মরে যায়। তারপরও বন্ধুদের মনের উষ্ণতা আর শুভাকাঙ্ক্ষীদের অকুণ্ঠ ভালোবাসায় দিনটা ভরে গিয়েছিল। কত যে ফোন, কত যে ক্ষুদে বার্তা, সোশ্যাল মিডিয়ায় আশীর্বাণী।’
জয়া আরও লেখেন, ‘অনেকের লেখায় এত আন্তরিকতা, এতটাই মমতা যে আমার চোখ পানিতে ভরে গেছে। সত্যিকারের ভালোবাসা এ রকম দিনেই টের পাওয়া যায়। ব্যক্তিগতভাবে সবাইকে আলাদা আলাদা করে বলতে পারলেই নিশ্চয়ই সবচেয়ে ভালো হতো। সঙ্গতও হতো। তারপরও সবাইকে কৃতজ্ঞতা। সবার জন্য অনেক অনেক ভালোবাসা।’