নিজস্ব প্রতিবেদক : দাঁতমারা হোসেনেরখীলের বেলাল ড্রাইভারের ছেলে ইউসুফ হোসেন দাঁতমারা,হোসেনেরখীল ও ইসলামপুরে মাদকের বিস্তার ঘটিয়ে এখন পুলিশের গ্রেপ্তারের ভয়ে কুমিল্লায় অবস্থান করছেন বলে জানাগেছে। দাঁতমারার ইয়াবা জগতের অঘোষিত রাজা ছিলো সে। জানাগেছে ইউসুফ একসময় এশিয়ার বৃহত্তম দাঁতমারা রাবার বাগানের চিহ্নিত চোর ছিলো। রাবার চুরি আর মাদক ব্যবসা করে সে এখন হয়েছেন অনেক সম্পদ ও টাকার মালিক। ইসলামপুর ও হোসেনেরখীলে বিগত প্রায় ৩ বছর ধরে ইয়াবা ব্যবসা করে পরিচিতি পেয়েছেন ইয়াবা সম্রাট হিসেবে। এর বিরুদ্ধে রয়েছে একাধিক মামলা। ইউসুফ নারী পাচার মামলায় দীর্ঘদিন কারাগারে ছিলো। জামিনে বেরিয়ে এসে পুলিশের চোখ ফাঁকি দিয়ে অন্য ব্যবসার আড়ালে ভিন্ন কৌশলে জমজমাট ভাবে ইয়াবা ব্যবসা করে আসছিলো এতোদিন। তবে দাঁতমারা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের আইসির সোহরাওয়ার্দী সরোয়ার এর বিশেষ অভিযানের মাঝে সুচতুর ইউসুফ এখনো স্থান বদল করে কুমিল্লায় বসে ইয়াবা ব্যবসা পরিচালনা করছেন। জানাগেছে এক সময় ইউসুফের বাবা বেলাল ড্রাইভার চট্টগ্রাম শহরে মাদক ব্যবসা করে হোসেনেরখীল এলাকায় এসে রাবার বাগানের সরকারি জমি দখল করে ঘরবাড়ি তৈরি করে পুলিশের চোখ ফাঁকি দিতে নিরাপদ স্থান হিসেবে এই এলাকায় আবাস গড়ে তুলে। কিন্তু ছেলে ইউসুফও বাবার মতোই মাদক ব্যবসা করে বাবার পথেই হাঁটছে বলে স্থানীয়দের অভিযোগ। এদিকে পুলিশ ইউসুফকে খুজতে তার বাড়িতে হানা দেয় বলে জানান পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ সোহরাওয়ার্দী সরোয়ার। কিন্ত ইউসুফ ২ নং দাঁতমারা ইউনিয়ন এর হোসেনেরখীল এলাকা ছেড়ে কুমিল্লা পদুয়ার বাজার এলাকায় গা ঢাকা দিয়েছে বলে সে এখনো ধরাছোঁয়ার বাইরে রয়েছে। তবে পুলিশ তাকে যেকোনো মূল্যে গ্রেফতার করবে বলে জানান। তাকে প্রেফতারে পুলিশ বিশেষ বিশেষ স্থানে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে বলে জানাগেছে।এদিকে তার বিরুদ্ধে সংবাদ পরিবেশন করায় হেয়াকো বাজার এলাকার এক সন্ত্রাসী এই প্রতিবেদকের আত্বীয় স্বজনদের বিভিন্নভাবে হুমকি দিয়ে যাচ্ছে। এই ব্যাপারে থানায় অভিযোগ দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।