তথ্যধারা প্রতিবেদক : মানব সেবাই পরম ধর্ম। আর পৃথিবীর প্রতিটি ধর্মেই মানব সেবার কথা বলা আছে। এছাড়াও অনেকের মতে, মানব সেবার মাঝেই সৃষ্টিকর্তার অধিক ভালোবাসা পাওয়া যায়। সেই মানবতার ফেরিওয়ালা হচ্ছেন মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফা জহুরা শিউলী। তার কাছে মানবতা আর মমতাই জীবনের একমাত্র নিদর্শন। নিজের ব্যক্তিগত জীবনের শুরু থেকেই তিনি মানুষের কল্যাণে নিয়োজিত আছেন। তিনি অন্যের সুখ-দুঃখের অংশীদারিত্ব গড়ে তুলেন।দেশের এ ক্রান্তিলগ্নে করোনা প্রতিরোধে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতকরণ, গণসচেতনতা সৃষ্টি ও বিদেশ ফেরত ব্যক্তিদের হোম অথবা প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে থাকা যাচাইকল্পে মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) আরিফা জহুরা শিউলী ও প্রশাসনের নির্দেশনায় করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব সম্পর্কে গণসচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে। তারা মধুপুর উপজেলার আনাচে কানাচে ঘুরে ঘুরে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সরকারী আদেশ মেনে চলার জন্য কঠোর ভাবে নির্দেশনা প্রদান করে দিন-রাত নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

জীবনযুদ্ধে আপসহীন সাহসী সৈনিক অকুতোভয় যোদ্ধা আরিফা জহুরা শিউলী। মানুষকে সাহায্য করার জন্য তিনি মাঠে-প্রান্তরে ছুটে চলছেন অবিরাম। রাত দিন ভর তিনি অসহায়দের পাশে দাঁড়িয়েছেন। দরিদ্র, দুস্থ ও অসহায়দের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করা, রাতের আধারে সবাই যখন ঘুমিয়ে তখন তারা প্রতিবন্ধী, বিধবা, দিনমুজর, ভ্যানওয়ালা, গরিব-অসহায় মানুষের বাড়ী বাড়ী ফেরি করে খাবার পৌঁছে দিচ্ছেন। এতে অসহায় মানুষের কাছে এখন তিনি “মানবতার ফেরিওয়ালা” নামে পরিচিত হয়েছেন। মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফা জহুরা শিউলীর এসব মহতী কর্মকান্ড ইতোমধ্যেই সর্বমহলে প্রশংশিত ও সমাদৃত হয়েছে।টাঙ্গাইল জেলার মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফা জহুরা শিউলী শুরু থেকেই দুর্নীতি, মাদক সেবন, মাদক কারবারী, বাল্যবিবাহ, সহ অনেক অপরাধের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনা করছেন। মধুপুর উপজেলার লোকদেরকে শান্তি ফিরিয়ে দিয়ে সাধারন মানুষের অন্তরে জায়গা করে নিয়েছেন তিনি । মধুপুরের ইউএনও এবং প্রশাসন সবসময় আর্তমানবতার সেবায় নিয়োজিত আছেন।

মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) আরিফা জহুরা শিউলী বলেছেন, গৃহবন্ধী মানুষদের মাঝে প্রতিবন্ধী, হতদরিদ্র, দিনমজুর, কর্মহীন, অস্বচ্ছল, ভ্যান চালক, অসহায় ও দিনমজুর মানুষের আয়ের কোনো উৎস না থাকায় তাদেরকে সরকারের পক্ষ থেকে খাদ্য সহায়তা দেওয়া হচ্ছে। করোনাভাইরাসের সংক্রমন রোধে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কারণে কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষের মুখে আমরা প্রতিনিয়ত খাদ্য তুলে দিচ্ছে।বর্তমানে মৃত্যুর মিছিলে কাঁপছে পুরো বিশ্ব। ভয় আর আতঙ্ক নিয়ে চতুর্দিকে ছুটোছুটি। কিন্তু করোনাভাইরাস মোকাবেলায় জনগণকে সচেতন করার লক্ষ্যে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে জনগণের পাশে দাঁড়ানো এই ব্যক্তিটি হচ্ছেন মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) আরিফা জহুরা শিউলী।